Thursday, January 19

চতুর্দশ লিটল ম্যাগাজিন মেলায় উন্মুখ


চতুর্দশ লিটল ম্যাগাজিন মেলায় উন্মুখ 
নিজস্ব প্রতিবেদন 
১৯.০১.২০১২ 
যথাসময়ে আমন্ত্রিতদের মধ্যে যোগাযোগ রক্ষা. নির্দিষ্ট মঞ্চে সকলকে একত্রিত করা. সময় ও নিয়মানুবর্তিতায় সকলকে একসাথে বেঁধে ফেলা. সুমধুর কথাবার্তায় বিষয়ের উপস্থাপন, দক্ষ সঞ্চালনা. আর শেষমেষ সভার সমর্থন লাভ. সার্থক একটি কবিতাবাসরের এসবকিছুই পাবেন উন্মুখ-এর আয়োজনে. ঋতুকালীন কবিতাবাসর থেকে বিশেষ অনুষ্ঠান. কোথাও এর ব্যতিক্রম নেই. চতুর্দশ লিটল ম্যাগাজিন মেলায় উন্মুখ-এর নিজস্ব অনুষ্ঠান ছিল ১৪ জানুয়ারী. মুক্তমঞ্চ. দুপুর ২টা ৩০ মিনিট. অনুষ্ঠান শুরু হল উন্মুখ সম্পাদক নীলাঞ্জন কুমার-এর স্বাগত ভাষণে. আমন্ত্রিত অতিথি ও শ্রোতাদের উদ্দ্যেশে তিনি উন্মুখ পত্রিকাগোষ্ঠীর কবিতাযাপনের বিভিন্ন দিক উল্লেখ করেন. তিনি জানান উন্মুখ কবিতা প্রকাশের পাশাপাশি নিয়মিত প্রকাশ করে চলেছে কবিতা বিষয়ক আলোচনা. কবিতার বই-এর আলোচনা. নিয়মিত আয়োজন করা হয় কবিতাবাসরের. সেই কবিতাবাসরে কবিতাপ্রেমীদের উপস্থিতিও লক্ষ্যনীয় সেকথা তাঁর বক্তব্যে তুলে ধরলেন তিনি. অত:পর শুরু হলো আমন্ত্রিত কবিদের কবিতাপাঠ. কবিতাপাঠ করলেন অভিরূপ দাস সুদীপ বুধাদিত্য দেব তারাপদ সাঁতরা প্রবীর মণ্ডল রহিম রাজা নিখিলকুমার সরকার সন্দীপ ধাড়া সুভাষচন্দ্র ঘোষ এবং সঞ্চালনায় ও শেষ কবিতাপাঠে নীলাঞ্জন কুমার. মঞ্চের সামনে অসংখ্য কবিতাপ্রেমীর উপস্থিতি ও কবিদের কবিতাপাঠ - মাত্র ৩০ মিনিটের অনুষ্ঠানটি এককথায় অনবদ্য. 

No comments:

Post a comment